Muktokolom

কলমের স্পর্শে শুদ্ধ হোক পৃথিবী

বাংলা সাহিত্যের সার্থক ছোটগল্পের গল্প

ছোটগল্পে’র ছোট ছোট গল্প ———————-মেহেদী হাসান তামিম রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর দীর্ঘ অবসরময় বর্ষায় কি করে কাটাবেন তা ভাবতে গিয়ে লিখে ফেললেন একটি দীর্ঘ কবিতা-’বর্ষাযাপন’। ’সোনার তরী’ কাব্যের এ কবিতায়, বিশ্বকবি বর্ষার হৃদয় আকুল করা ঝুম বৃষ্টিধারার মধ্যে কলকাতা শহরের বুকে ঘরবন্দী হয়ে সময় পার করতে বিভিন্ন কাজ করে নিজেকে ব্যস্ত রাখছেন। জানালা পথে পাশের দালানগুলোকে খুঁটিয়ে […]

শেয়ার করুন

নাগরিক কবিয়াল ; শামসুর রাহমান

সবুচ্ছাদিত অন্তরভূমির নাগরিক কবি: আমাদের শামসুর রাহমান —————– মেহেদী হাসান তামিম রবীন্দ্রবলয় থেকে বেরিয়ে যে কবিতা লিখা যায় তার সাহস দেখিয়েছিলেন পঞ্চপান্ডব হিসেবে খ্যাত একি সাথে যারা আধুনিক নাগরিক কবিয়াল– বুদ্ধদেব বসু, জীবনানন্দ দাশ, সুধীন্দ্রনাথ দত্ত, বিষ্ণু দে ও অমিয় চক্রবর্তী। আমরা জানি, মধ্যযুগের শেষ কবি রায়গুণাকর ভারতচন্দ্র বাংলা সাহিত্যের প্রথম নাগরিক-কবি। তবে তাকে কখনোই […]

শেয়ার করুন

কবি নয়, ব্যাক্তি জীবনানন্দ

♥জীবনানন্দ দাশ: চেনা অচেনার গন্ডি পেরিয়ে♥ ——————– মেহেদী হাসান তামিম “আমি কবি – সেই কবি – আকাশে কাতর আঁখি তুলি হেরি ঝরাপালকের ছবি” সে কবি বাংলা ভাষার শুদ্ধতম কবি, তিমির হননের কবি, তিনি কবি জীবনান্দ দাশ। যে ছেলেটির মাতা ছিলেন গৃহস্থ পরিবারের আদর্শ একজন নারী, সেই কুসুমকুমারী দাশের কবিতা – আদর্শ ছেলে, ‘আমাদের দেশে হবে […]

শেয়ার করুন

ভবিতব্য কবি সাহিত্যিক একটু দাঁড়ান। লাইক দেবার দরকার নাই, পড়ুন।

আমার দ্রোহ, আমার প্রেম ; কবি শঙ্খ ঘোষ ——— মেহেদী হাসান তামিম (কিছু প্রাসঙ্গিক কথা- উনার সম্পর্কে খুব বেশী স্বচ্ছ ধারনা ছিলনা আমার। দুই আড়াই মাস আগে অন্তর্জালে কবিতা পড়তে পড়তে হঠাৎ একজনের কবিতায় মুগ্ধতায় চোখ আটকে গেল। তারপর তাঁর আরো একটা পড়লাম—তারপর আরো একটা–এভাবে পড়তে পড়তে মাঝখানে কয়েকদিন একটা ঘোরের মধ্যে পার হয়েছি। মিলানোর […]

শেয়ার করুন

বিত্তপিয়াস

হয়ত সে এসে গিয়েছে জীবন করে সুধাময় খুঁজি তবু বসে ঠেলে দিয়ে দূরে যত আছে ভয় এসেছিল হেসে দূরদেশী ভিন সাজে এ ধরায়। ত্বরা ছিল তার যাবে ফিরে বহুদূরে সব ফেলে ছেড়ে মণিহার রেখে মধুধ্বনি চারিদিকে তুলে রুপসী বাহার ক্ষণিক ঝলক মোহপথে ঠেলে। বেঁচে থাকে মন সংশয়ে ভরা নিয়ে লোভ ক্ষয় কভু করে পণ জাগতিক […]

শেয়ার করুন

ছেলেসন্তান

এক. – শালা হেলমেট পরে কাজ করতে পারিসনে বানচোত! মারবি নাকি বে বৌটাকে। এ নিয়ে কয়বার খসালি। – কি করবো বলো মাগীটাই তো খালি মিয়েছিলে বাঁধায়। গুরু মাইরি বলছি, আর হপ্পেনা এ-এ-ই শেষ। এই একহাজার রাখো। আর আসবনা বলছি। – না, ওতে হবেনা। এ কাজে রিস্ক ওহন বাইড়া গেছে। খবর হইলে সোজ্জা চোদ্দ শিক। আরো […]

শেয়ার করুন

দীর্ঘশ্বাস

ভেবেছিলাম বড়ো হবো অনেক দূরের ঐ আকাশটা পারব ছুঁতে জীবনের হাল ধরবো শক্ত হাতে পারলাম কই, কামড়ায় বিবেক। হলো অর্জন বহু সনদ বহু চিঠি কাজ হয় নি কেউ দেয় নি দাম নেপথ্যে তোমরা, ফেললে ঘাম স্বপ্ন দাঁড়াবো পাশে সেও মাটি। হারাতে বসেছি, বিশ্বাস আশ্বাস কোন মুখে দাঁড়াই লজ্জা লাগে পেলামই শুধু ঢেলে দিলে ত্যাগে বেঁচে […]

শেয়ার করুন

পুষ্পহার

অণুকাব্য ====== পুষ্পহার ====_মিজান মোহাম্মদ কতোশতো হেমন্তের জমা কতো কূয়াশায় সতেজ রেখেছি কতো বসন্তের রাঙা ফুল, আসোনি তুমি,যায় সন্ধ্যা- সকাল আর উদাস দুপুর, সখী সব আয়োজন তবে হবে বুঝি ভুল! হৃদয় বাড়িয়ে- আছি দাঁড়িয়ে আজও খোলা দ্বারে , এসো এসো সখী সাজাবো তোমায় আমার পুষ্পহারে। লেখাটি ভালো লাগলো 0

শেয়ার করুন
পাতা ৬ থেকে ৯« প্রথম......শেষ »
Muktokolom © 2017 রুদ্র আমিন